fbpx

বিজ্ঞানীরা বলছেন, কালোজিরাতেই ঘায়েল হবে করোনা!

সিডনির একটি সমীক্ষা বলছে, এতে রয়েছে থাইমোকুইনোন নামে একটি উপাদান, যা করো’নার বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারে। এই উপাদানটি করোনাভাইরাসের স্পাইক প্রোটি’নের সঙ্গে আটকে যায়, ফলে ভাইরাসটি ফুসফু’সে সংক্রমণ ঘটা’তে পারে না।

এ ছাড়া করোনা রোগীদের ক্ষেত্রে সবচে’য়ে বিপজ্জনক যে ‘সাইটোকাইন স্টর্ম’, সেটিও আ’টকে দিতে পারে কালোজিরা। আর সেই কারণে’ই করোনা চিকিৎসায় আশার আলো দেখাচ্ছে এটি।

তবে কিছু সমস্যাও রয়েছে। কিন্তু বিজ্ঞানী’রা বলছেন, ওষুধ তৈরির উন্নত পদ্ধতি ব্যবহার করে এই সমস্যা কাটানো সম্ভব। তখন ওরাল মেডিসিন হিসেবেও এটি নেওয়া যাবে। তবে এখন পর্যন্ত রোগী’দের নাকের স্প্রে হিসেবেই এর ব্যবহার হয়েছে।

রান্নাঘরের অতি সাধারণ একটি মসলা কালোজিরা। আর সেটাই হতে পারে করোনার ওষুধ! ভাবতে অবাক লাগলেও এমনটা’ই বলছেন বিজ্ঞানীরা।

গাছটির বৈজ্ঞানিক নাম নাইজেলা স্যাটি’ভা। এটি বছরের পর বছর ধরে উত্তর আমেরি’কা ও পশ্চিম এশিয়া’র নানা দেশে সংক্রা’মক অসুখ কমানোর জন্য ব্যবহৃত হয়ে আসছে। উচ্চ রক্তচা’প, অ্যালার্জি, ত্বকের সংক্রমণ কমাতেও এর জুড়ি নেই।

ফেসবুকে লাইক দিন